ঢাকা : বৃহস্পতিবার, ২৩ নভেম্বর ২০১৭

সংবাদ শিরোনাম :

  • সরকার নদীখননের কার্যক্রম হাতে নিয়েছে : নৌ-পরিবহনমন্ত্রী          দক্ষতা-জ্ঞান-প্রযুক্তির মাধ্যমেই সক্ষমতা অর্জন সম্ভব : পররাষ্ট্রমন্ত্রী           বাংলাদেশে এ বছর রেকর্ড পরিমাণ প্রবৃদ্ধি হয়েছে          জাতীয় নির্বাচনে সেনা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত হয়নি : সিইসি          আ.লীগ সরকার ছাড়া কোনো দলই এত পুরস্কার পায়নি : প্রধানমন্ত্রী          মোবাইল ব্যাংকিং সেবার চার্জ কমে আসবে : অর্থমন্ত্রী          রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে সু চিকে জাতিসংঘের অনুরোধ
printer
প্রকাশ : ০৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৮:৩৬:১৬
হাকালুকিতে পাখির সংখ্যা বেড়েছে
মৌলভীবাজার সংবাদদাতা


 


হাকালুকি হাওরে গত তিন বছরের তুলনায় এবার পাখির সংখ্যা বেড়েছে। হাওরের ৪০টি বিলে দুই দিনের জলচর পাখিশুমারি শেষে গত শনিবার রাতে জরিপের কাজে জড়িত কর্মকর্তারা এ তথ্য দিয়েছেন।
জানা গেছে, বাংলাদেশ বার্ড ক্লাব ও আন্তর্জাতিক বেসরকারি সংস্থা ইউএসএআইডির জলবায়ু-সহিষ্ণু প্রতিবেশ ও জীবিকায়ন (ক্রেল) প্রকল্প এ শুমারি চালায়। বার্ড ক্লাব সূত্রে জানা গেছে, হাকালুকি হাওর মৌলভীবাজারের কুলাউড়া, জুড়ী ও বড়লেখা এবং সিলেটের ফেষ্ণুগঞ্জ ও গোলাপগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন এলাকাজুড়ে বিস্তৃত। বার্ড ক্লাবের ১২ সদস্যের দুটি দল গত শুক্র ও শনিবার হাওরের ৪০টি বিলে পাখিশুমারি চালায়। শুমারিতে এসব বিলে ৫০ প্রজাতির ৫৮ হাজার ২৮৯টি পাখি দেখা গেছে। এর মধ্যে চারটি বেয়ারের ভুঁতিহাঁস দেখা গেছে। এ ছাড়া ৩৭ হাজার ৩৪৮টি বিভিন্ন প্রজাতির হাঁস ও ১ হাজার ৪৭৩টি সৈকত পাখি দেখা যায়। গত বছর শুমারিকালে হাওরে ৫৬ প্রজাতির ৩৪ হাজার ২৬৪টি, ২০১৫ সালে ৫৬ প্রজাতির ২১ হাজার ৬৩১টি ও ৬০ প্রজাতির ২৩ হাজার ৪২টি জলচর পাখি দেখা গিয়েছিল। বার্ড ক্লাবের সভাপতি ইনাম আল হক বলেন, বেয়ারের ভুঁতিহাঁস বিশ্বে মহাবিপন্ন। দেশের অন্য কোথাও এ পাখির দেখা মেলেনি। হাকালুকিতে এই প্রজাতির মাত্র চারটি পাখির দেখা পাওয়া গেছে। পাখি বেড়ে যাওয়ার কারণ সম্পর্কে তিনি বলেন, এবার হাওরের বিভিন্ন বিলে পানি দেখা গেছে। এ কারণে পাখি বেড়েছে। অন্যান্য বছর পানি কম থাকায় সহজেই শিকারিরা পাখি ধরে নিয়ে গেছে।

printer
সর্বশেষ সংবাদ
পর্যটন পাতার আরো খবর

Developed by orangebd