ঢাকা : বুধবার, ২২ নভেম্বর ২০১৭

সংবাদ শিরোনাম :

  • সরকার নদীখননের কার্যক্রম হাতে নিয়েছে : নৌ-পরিবহনমন্ত্রী          দক্ষতা-জ্ঞান-প্রযুক্তির মাধ্যমেই সক্ষমতা অর্জন সম্ভব : পররাষ্ট্রমন্ত্রী           বাংলাদেশে এ বছর রেকর্ড পরিমাণ প্রবৃদ্ধি হয়েছে          জাতীয় নির্বাচনে সেনা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত হয়নি : সিইসি          আ.লীগ সরকার ছাড়া কোনো দলই এত পুরস্কার পায়নি : প্রধানমন্ত্রী          মোবাইল ব্যাংকিং সেবার চার্জ কমে আসবে : অর্থমন্ত্রী          রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে সু চিকে জাতিসংঘের অনুরোধ
printer
প্রকাশ : ১০ এপ্রিল, ২০১৭ ১৭:১৯:৪১আপডেট : ১০ এপ্রিল, ২০১৭ ১৭:৩১:১৮
আমার এবং শাকিবের সংসারে ৮ মাস বয়সি ছেলে সন্তান : অপু বিশ্বাস
টাইমওয়াচ ডেস্ক


 

২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল অপু বিশ্বাসকে বিয়ে করেন শাকিব খান। ১০ এপ্রিল সোমবার বিকেল ৪টায় একটি বেসরকারি চ্যানেলে সরাসরি সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে অকপটে বিয়ের কথা স্বীকার করেন অপু।
 
তিনি বলেন, ২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল শাকিবের সঙ্গে আমার বিয়ে হয়। বিয়েতে শাকিব ছাড়াও উপস্থিত ছিল তার মা, চাচাতো ভাই এবং আমার মা। খুব গোপনে বিয়ে হয়। আমাদের বিয়ে হয় রেজিস্ট্রি করে। ফরিদপুর থেকে কাজী আনা হয়। বিয়ের সময় আমার নাম হয় অপু ইসলাম খান। শাকিবের ইচ্ছাতেই এত দিন বিয়ের বিষয়টি গোপন রাখা হয়েছে।
 
অপু বলেন, বর্তমানে আমার এবং শাকিবের সংসারে ৮ মাস বয়সি এক ছেলে সন্তান রয়েছে। ছেলের নাম আব্রাহাম খান জয়। তার জন্ম গেল বছরের ২৭ সেপ্টেম্বর কলকাতার একটি ক্লিনিকে। সিজারের মাধ্যমে জয়ের জন্ম হয়।
 
অপু বলেন, শাকিবের ভালো চিন্তা করে এতদিন চুপ করেছিলাম। অনেক ছাড় দিয়েছি। ধৈর্য ধরতে ধরতে শেষ সীমানায় পৌঁছে গেছি। কারণ, সে আমাকে সবসময় ছোট করেছে। অনেক লাঞ্ছনা সহ্য করেছি। কিন্তু আর সইতে পারলাম না।
একপর্যায়ে অপু বিশ্বাস বলেন, অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার পর শাকিব আমাকে বলেছিল নিজেকে লুকিয়ে রাখতে। তাই লুকিয়েছিলাম। কিন্তু সন্তান হওয়ার সময় শাকিব আমার পাশে ছিল না। তবে ঢাকায় আসার পর সন্তানকে দেখতে আসে। সন্তানের সব খরচও দেয়। সর্বশেষ শনিবার (৮ এপ্রিল) রাতেও সে আমার সাথে দেখা করেছে। বাচ্চাকে আদর করেছে।আমার এবং শাকিবের সংসারে ৮ মাস বয়সি ছেলে সন্তান : অপু বিশ্বাস
এতদিন এসব খবর আড়াল রাখার প্রসঙ্গে অপু বলেন, শাকিবের ক্যারিয়ার এখন তুঙ্গে। সে আমার স্বামী। এসব কথা জানাজানি হয়ে গেলে তার সম্মানহানি হবে, ক্যারিয়ারের ক্ষতি হবে, তাই চুপ করে ছিলাম। কিন্তু সে এখন যেটা করছে সেটা অন্যায়। আমাকে আমার যোগ্য সম্মানটা দিচ্ছে না। আমি আর এই যন্ত্রনা সইতে পারছি না।

printer
সর্বশেষ সংবাদ
বিনোদন পাতার আরো খবর

Developed by orangebd