ঢাকা : বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১

সংবাদ শিরোনাম :

  • ‘এসডিজি প্রোগ্রেস অ্যাওয়ার্ড’ পেলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা          করোনায় আরও ২৬ জনের মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ১৫৬২ জন          বঙ্গোপসাগরে লঘুচাপ, নদীবন্দরসমূহকে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত          জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মেডেল পেলেন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর ১১০ সদস্য          অষ্ট্রেলিয়া-বাংলাদেশের মধ্যে টিফা চুক্তি স্বাক্ষর          অনিবন্ধিত সব অনলাইন বন্ধ করে দেওয়া সমীচীন হবে না : তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী
printer
প্রকাশ : ০৯ মে, ২০১৭ ১৬:৪২:৩৩
জামায়াতের সাবেক এমপি আজিজের রায় যেকোনো দিন
টাইমওয়াচ রিপোর্ট


 

মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় গাইবান্ধা জেলার সুন্দরগঞ্জের জামায়াতের সাবেক সংসদ (এমপি) আবদুল আজিজসহ ছয়জনের মামলার রায় যেকোনো দিন।
 
মঙ্গলবার ৯ মে এই মামলার যুক্তিতর্ক শুনানি শেষে বিচারপতি আনোয়ারুল হকের নেতৃত্বে তিন সদস্যের আন্তর্জাতিক ট্রাইব্যুনাল মামলাটি রায়ের জন্য অপেক্ষমাণ (সিএভি) রাখেন।
 
আবদুল আজিজ (৬৫) ছাড়া এই মামলার অন্য আসামিরা হলেন-রুহুল আমিন ওরফে মঞ্জু (৬১), আবদুল লতিফ মণ্ডল (৬১), আবু মুসলিম মোহাম্মদ আলী (৫৯), নাজমুল হুদা (৬০) ও আবদুর রহিম মিঞা (৬২)। আসামিদের মধ্যে আবদুল লতিফ মণ্ডল ছাড়া বাকিরা পলাতক রয়েছেন।
 
গত ১৬ এপ্রিল এই মামলার যুক্তিতর্ক শুনানির জন্য ৮ মে দিন নির্ধারণ করেন। পরে সোম ও মঙ্গলবার দুদিন যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষ করে উভয়পক্ষ। এরপর আদালত মামলাটি রায়ের জন্য অপেক্ষমাণ রাখেন।
 
আসামিদের বিরুদ্ধে ২০১৫ সালের ২০ নভেম্বর আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন ট্রাইব্যুনাল। পরে আসামি আবদুল লতিফকে গ্রেফতার করা হলেও বাকি পাঁচ আসামি পালাতক রয়েছেন।
 
২০১৫ সালের ২৭ ডিসেম্বর আবদুল আজিজসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে চূড়ান্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করে তদন্ত সংস্থা। তাদের বিরুদ্ধে গণহত্যা, হত্যা, নির্যাতন, অপহরণ, অগ্নিসংযোগের তিনটি অভিযোগ আনা হয়েছে।
 
২০১৬ সালের ২৮ জুন ছয় আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরুর নির্দেশ দেন ট্রাইব্যুনাল। এক বছরের কম সময়ের মধ্যে এই বিচার কার্যক্রম শেষ হলো।
 
উল্লেখ্য, আবদুল আজিজ গাইবান্ধা-১ আসন থেকে ২০০১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত চার দলীয় জোট সরকারের সময় জামায়াতের সংসদ সদস্য ছিলেন।

printer
সর্বশেষ সংবাদ
আইন-বিচার-অপরাধ পাতার আরো খবর

Developed by orangebd