ঢাকা : সোমবার, ১৮ জুন ২০১৮

সংবাদ শিরোনাম :

  • গণতন্ত্র এখন সুরক্ষিত : প্রধানমন্ত্রী          ৪ লাখ ৬৪ হাজার ৫৭৩ কোটি টাকার বাজেট পেশ          নারীবান্ধব পরিবেশ সৃষ্টিতে সকলকে সহযোগিতার আহবান স্পিকারের          প্রশ্ন ফাঁসমুক্ত পরীক্ষা অনুষ্ঠানে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে : শিক্ষামন্ত্রী          তিন হাজার বিদ্যালয়ে একাডেমিক ভবন নির্মাণ করা হবে
printer
প্রকাশ : ১৭ এপ্রিল, ২০১৮ ১৭:৫৫:২৮আপডেট : ১৮ এপ্রিল, ২০১৮ ১২:৪৭:১৪
গ্রিন লাইন পরিবহনের নতুন এসি ডাবল ডেকার বাস
টাইমওয়াচ রিপোর্ট


 


 যাত্রীদের সুবিধার্থে এবার সংযুক্ত হচ্ছে ঢাকা-সিলেট ও ঢাকা-কক্সবাজার রুটে গ্রিন লাইনের ডাবল ডেকার ও স্লিপার বাস সার্ভিস। বাসগুলো বিলাসবহুল সম্পূর্ণ শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত এবং থাকবে নীরবচ্ছিন্ন ওয়াইফাই সুবিধাসহ যাত্রা বিরতিতে মানসম্মত সৌজন্যমূলক খাবার ব্যবস্থা।

নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান ১৭ এপ্রিল মঙ্গলবার এ সার্ভিস উদ্বোধনকালে বলেন, সারা বিশ্বে সড়ক পরিবহনে আধুনিক মানসম্মত গাড়ি চলাচল করছে; বাংলাদেশেও বর্তমান যুগের সাথে সামঞ্জস্য রেখে আধুনিক মানসম্মত গাড়ির প্রয়োজন। বর্তমান সময়ের সাথে পাল্লা দিয়ে সিলেট ও কক্সবাজারবাসী জনগণের সুবিধার কথা বিবেচনা করে জার্মানির বিখ্যাত MAN ব্রান্ডের দৃষ্টিনন্দন, বিলাসবহুল বাস আমদানি করেছে গ্রিন লাইন। অত্যাধুনিক এসব বাস যাত্রী সাধারণের মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলবে বলে আশা করছি।

গ্রিন লাইন পরিবহনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আলহাজ আলাউদদিন বলেন, চট্টগ্রামের পর এবার সিলেট ও কক্সবাজার রুটের যাত্রী সাধারণের এই আধুনিক ও উন্নত চাহিদা পূরণের লক্ষ্যেই দ্বিতল ও স্লিপার সার্ভিস চালু করা হচ্ছে। গ্রিন লাইন পরিবহন ২০১৮ সালে জার্মানির গঅঘ ব্র্যান্ডের অত্যাধুনিক ডবল ডেকার বাস আমদানিতে উদ্ভুদ্ধ হয়। ইতোমধ্যে দ্বিতল ১০ ইউনিট বাস আমদানি করা হয়েছে। এই বাসগুলোর সম্পূর্ণ বডি মালয়েশিয়ার বিখ্যাত বাস বডি বিল্ডার কোম্পানি দ্বারা নির্মিত। ১২৪০০ সিসির ইঞ্জিনবিশিষ্ট ৮ চাকার মাল্টি এক্সেল বিশিষ্ট বাস। নিচ তলায় থাকছে ১১টি করে সিট এবং দোতলায় থাকছে ৩২টি সিট সর্বমোট ৪৩ সিট বিশিষ্ট বিজনেস ক্লাস বাস। এই ডাবল ডেকার বাসে ঢাকা-সিলেট রুটে ভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে ১২০০/- এবং ঢাকা-কক্সবাজার রুটে ভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে ২০০০ টাকা।

গ্রিন লাইন পরিবহন সড়ক পথে যাত্রীসেবা দেয়ার উদ্দেশ্যেই স্লিপার এবং ডাবল ডেকার বাস সার্ভিস পরিচালনা করছে। ইউরোপের বিশ্ববিখ্যাত ব্র্যান্ড সুইডেনের ভলভো স্ক্যানিয়া ও জার্মানির ম্যান গাড়ি দ্বারা আন্তর্জাতিক মানের যাত্রীসেবা প্রদান করে সড়ক পথে নির্ভরযোগ্য প্রতিষ্ঠান হিসেবে মানুষের মন জয় করেছে। আন্তর্জাতিক মানের যাত্রীসেবা, উন্নত মানের গাড়ি, সু-শিক্ষিত গাইড, প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত চালক, নিজস্ব বাস টার্মিনালের মাধ্যমে সব ধরনের যাত্রীদের নিরাপত্তা দিয়ে সেবা প্রদান করে আসছে গ্রিন লাইন পরিবহন। নিরাপদ ও আরামদায়ক ভ্রমণে গ্রিন লাইন পরিবহন বাংলাদেশে উন্নত ও আধুনিক মাত্রা যোগ করেছে।
গ্রিন লাইন পরিবার শুধু সড়ক পথেই সীমাবদ্ধ নেই, সময়ের সাথে তাল মিলিয়ে গ্রিন লাইন আধুনিক মানসম্মত নৌযানের মাধ্যমে ঢাকা-বরিশাল নৌপথে ডে সার্ভিসের মাধ্যমে যাত্রী সুবিধা অব্যাহত রেখেছে। পর্যটন শিল্পেও গ্রিন লাইন পরিবার সংযুক্ত। গ্রিন লাইন ওয়াটারওয়েজসেবা দিয়ে আসছে টেকনাফ-সেন্টমার্টিন রুটে। সম্প্র্রতি নৌ পরিবহনমন্ত্রী উদ্বোধন করেছেন কুয়াকাটা হতে সুন্দরবন নৌ পথে জাহাজ। এ জাহাজ মাত্র তিন হাজার টাকায় সকালে কুয়াকাটা হতে সুন্দরবন ভ্রমণে শীতকালীন মৌসুমে চলমান আছে, থাকছে আধুনিক সুযোগ সুবিধাসহ সকালের নাস্তা, দুপুরের খাবার, বিকালের নাস্তা। শীতকালীন মৌসুমে প্রতিদিনই এ সার্ভিস পাবেন ভ্রমণ পিপাসুরা।

গ্রিন লাইন পরিবার দেশের দক্ষিণাঞ্চলের যাত্রীদের সুবিধা বিবেচনায় রেখে আধুনিক মানসম্পন্ন জাহাজ দ্বারা ডে সার্ভিস পরিচালনায় ইচ্ছক। দেশের দক্ষিণাঞ্চলের বিভিন্ন নৌপথে জাহাজ পরিচালনায় যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমোদন পেলে অবশ্যই দক্ষিণাঞ্চলের যাত্রীদের জন্য ডে সার্ভিসে সেবা দিতে তারা প্রস্তুত।

printer
সর্বশেষ সংবাদ
সারা দেশ পাতার আরো খবর

Developed by orangebd