ঢাকা : মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯

সংবাদ শিরোনাম :

  • পণ্য মজুদ আছে, রমজানে পণ্যের দাম বাড়বে না : বাণিজ্যমন্ত্রী          বঙ্গবন্ধুর খুনিদের দেশে ফিরিয়ে আনতে চায় সরকার          অর্থনৈতিক উন্নয়নে সব ব্যবস্থা নিয়েছি : প্রধানমন্ত্রী          বনাঞ্চলের গাছ কাটার ওপর ৬ মাসের নিষেধাজ্ঞা          দেশের সব ইউনিয়নে হাইস্পিড ইন্টারনেট থাকবে
printer
প্রকাশ : ২৪ জুন, ২০১৯ ২৩:৪৫:২৯আপডেট : ২৫ জুন, ২০১৯ ১৩:৩১:৫১
অপার হয়ে বসে আছি
মিজানুর রহমান খান


 


১.
পরান কান্দিয়া মরে হইয়া জারজার
শূন্যে তাকাইয়া থাকি বসিয়া অপার।
দেহসনে মন কেন মিলিতে না পারে
বুজিতে পারি না কিছু বলে কি সে ঠারে!
জল যদি পানি হয় দোষ কি'বা তাতে
এত জল ঘোলা হলো সব হাতে হাতে?
চক্ষুতে জলের কণা ফোঁটা-ফোঁটা ঝরে
আন্ধারে তাকায়া চোখ শুকাইয়া মরে।
বাতাস বহিয়া যায় চিরল পাতায়
নিরবধি ডাল পিষি লোহার যাতায়?
পিষিতে পিষিতে মন গলে গলে পড়ে
কেমনে একলা রই শূন্য গোলাঘরে।
ঝিমধরা পাতাগুলি বাতাস পাইলে
নৌকার গলুয়ে জল খেলে কলকলে।
২.
মারাফতি নয় কোন মরমীর গান
মাঝ নদে জল খেলে চান্দের লাহান।
দূর থেকে ভেসে আসা হুইসেল শুনে
মন কয় দেখা হবে বন্ধুয়ার সনে।
সবকিছু ভুলে ভরা শূন্য করে মন
আমারে নাড়ায়া পাখি খেলছে কেমন!
কড়ের হিসাব মত মিলে যায় সব
বিশ্বাসে মিলায় বুঝি, কেহ কার রব?
বিশ্বাসে কপাল পোড়ে? তিলক কপাল
আন্ধার ঘুচবো তার হইবো সকাল।
বুকের গহীনে শ্বাস নিশ্বাসও চলে
পলক পড়ে না থাকে পল অনু পলে।
আবারো বাড়াই হাত আন্ধারের  ঘরে
টের পাই জ্বলিয়া উঠিল কি প্রেমানলে।
 

printer
সর্বশেষ সংবাদ
সাহিত্য-সংস্কৃতি পাতার আরো খবর

Developed by orangebd